Ultimate magazine theme for WordPress.

জয়পুরহাটে জোরপূর্বক সম্পত্তি দখল ও মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে ভাসুরের বিরুদ্ধে ক্ষেতলালে এক নারীর সংবাদ সম্মেলন

412

জয়পুরহাট জেলার কালাই উপজেলার ঝামুটপুর দক্ষিণপাড়া গ্রামের কুয়েত প্রবাসী জাহাঙ্গীর আলমের স্ত্রী মোছাঃ মিনা পারভিন নামে এক নারী ক্ষেতলাল রিপোর্টার্স ক্লাবের অস্থায়ী কার্যালয়ে গত ২৭ মে বৃহস্পতিবার বেলা ১২ টায় এক সংবাদ সম্মেলন করেন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, আমার স্বামী জাহাঙ্গীর আলম একজন কুয়েত প্রবাসী, স্বামী প্রবাসে থাকার সুযোগে আমার স্বামীর আপন বড় ভাই অর্থলোভী, অবৈধ টাকার মালিক গাজীউল ইসলাম অর্থ আর ক্ষমতার দাপটে আমার স্বামীর অর্থাৎ তার নিজ ভাই ,ভাতিজার জমিজমা, সম্পত্তি জোরপূর্বক দখল করেছে। ওই নারী আরো দাবি করে বলেন, আমার ভাসুর গাজীউল ইসলাম ঢাকায় অবস্থান করেন, ঢ়াকায় বসে প্রতারণার মাধ্যমে বিভিন্ন রাজনৈতিক ব্যক্তিদের সাথে সেলফি দেখিয়ে জয়পুরহাট এলাকার সহজ-সরল বেকার যুবকদের চাকরি দেওয়ার নাম করে কোটি কোটি টাকা ও গাড়ি-বাড়ির মালিক হওয়ায় আমরা আপনজনরা তার নির্যাতনের হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছিনা, তার সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে আমাদেরকে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করছে ও আমাদের সম্পত্তি জোরপূর্বক দখল করেছে এবং প্রতিনিয়ত আমার ভাসুর আমারসহ আমার সন্তানদের প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছেন, উপরন্ত বিভিন্ন মিডিয়ায় তাকে নিয়ে “শূন্য থেকে কোটিপতি” শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হলে তিনি ওই মিডিয়া সংশ্লিষ্ট ৩ সাংবাদিক এবং ওই নিউজটি নিজ ফেসবুক আইডিতে শেয়ার করার অপরাধে আমার স্বামী প্রবাসী জাহাঙ্গীর আলমসহ মোট ৬ জনকে আসামী করে আমার ভাসুর গাজীউল ইসলাম পিতা আফতাব (৫০) ঢাকায় সাইবার ট্রাইব্যুনাল আদালতে মিথ্যা মামলা দায়ের করেন, তিনি মিথ্যা মামলা দায়ের করার পরও বিভিন্নভাবে আমাকে ও আমার ছেলেমেয়েকে ভয়-ভীতি প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছেন, এমতাবস্থায় আমি ও আমার পরিবার পরিজন নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি,এবিষয়ে আমি কালাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি অভিযোগ দায়ের করেছি, এখনো কোনো প্রতিকার দৃশ্যমান হচ্ছে না, তিনি আরো বলেন,আমি একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার কন্যা,আমার পিতা মোঃ রেজাউল ইসলাম কালাই উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার, তারপরও আমার ভাসুরের কালো টাকার দাপটে আমি অসহায় হয়ে পড়েছি, আমার নিরাপত্তাহীনতার কারণে আমি কালাই উপজেলায় সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করতে পারিনি। ভবিষ্যতে আমার ও আমার সন্তানদের যে কোন ক্ষতির বিষয়ে ভাসুর গাজীউল ইসলাম দায়ী থাকবেন। একজন অসহায় নারী হিসেবে, একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান হিসেবে আমি আমার সম্পত্তি পুনরুদ্ধার, জানমালের নিরাপত্তা ও আমার স্বামীর বিরুদ্ধে ঢাকা সাইবার ট্রাইব্যুনালে ২০৯/ ২০২১ করা মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার চাচ্ছি । এই সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আমি সাংবাদিক সমাজের কাছে বিষয়টি অবহিত করলাম এবং সর্বোপরি আপনাদের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করছি” এ সময় স্থানীয় এবং জাতীয় পত্রিকার বিভিন্ন সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন৷

Leave A Reply

Your email address will not be published.

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com