Ultimate magazine theme for WordPress.

বগুড়ার ঐতিহাসিক মহাস্থান কোরবানি পশুর হাট বেশ জমজমাট।

385

আসছে ২২ আগষ্ট মুসলিম উম্মাহর ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদুল আযহা অনুষ্ঠিত হবে। আর এই ঈদকে সামনে রেখে উত্তরাঞ্চলের বৃহৎ পশু কেনাবেচার হাট বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলা ঐতিহাসিক মহাস্থান হাটে জমে উঠেছে গরু/ছাগল ক্রয়-বিক্রয়। 

কোরবানির ঈদকে ঘিরে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আসা গরু ব্যাবসায়ীরা বিক্রয়ের জন্য হাটে আনতে শুরু করেছেন বিভিন্ন জাতের গরু-ছাগল ফলে জমে উঠেছে ক্রয় বিক্রয়,হাটে জায়গা সংকুলান না হওয়ায় ক্রেতা শিবগঞ্জ রোডেও বিক্রেতারা বিক্রি করতে দেখা যায়,এছাড়া মহাস্থান মাদ্রাসা মাঠে ছাগল হাটেও কেনাবেচা বেশ ভালো হয়েছে বলে জানান ক্রেতা ও বিক্রেতাগন । প্রতি সপ্তাহে শনিবার ও বুধবার হাট বসলেও শুধু বুধবার এহাটে পশু ক্রয় বিক্রয় হয়। প্রতি বছরের চেয়ে এবার প্রচুর গরু আমদানি হয়। তুলনামূলকভাবে দাম কম থাকায় গতবারের চেয়ে গরু ক্রয় বিক্রয় বেড়েছে অনেক। এদিকে পশুরহাটে ক্রেতা-বিক্রেতাদের জন্য নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করতে শিবগঞ্জর থানা প্রশাসনেরর পক্ষে নিশ্রিদ্ধ নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়। সাধারণত ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে ভাল রোজগারের আশায় এলাকার কৃষকরা অনেকেই গরু মোটাতাজা করন করেন। গ্রাম পর্যায়ে কাঁচা সবুজ ঘাস, খড়, খৈল,ভুষি ইত্যাদি খাইয়ে গরু, ছাগল,মহিষ লালন পালনের রেওয়াজ রয়েছে। কিন্তু গত কয়েক বছর ধরে উপজেলায় গরু মোটাতাজা করণের লক্ষ পুরনো প্রথার পাশাপাশি আধুনিক নানা পদ্ধতি অবলম্বন করতে শুরু করেছেন অনেকেই। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলার অনেকেই প্রাকৃতিক উপায়ে সুষম খাদ্যের পাশাপাশি ইউরিয়া মোলাসিস ব্যবহারের মাধ্যমে অতি সহজেই গরু মোটাতাজাকরণ করছেন। বিশেষ করে গরুর খামারিরা এ কাজটি করছেন অধিকহারে। মহাস্থান হাটে গিয়ে ক্রেতা বিক্রেতাদের সাথে গরুর দাম দর নিয়ে কথা হয়। সাধারণ মানুষ জানান, গতবারের চেয়ে এবার দাম অনেক কম। এই হাটে ব্যাপারীদের আনাগোনা চোখে পড়ার মতো। শাখারিয়ার চঞ্চল ও চন্ডিহারা রাহাত খানের এগ্রো ফার্মের গরু হাটের মধ্য সবচেয়ে বড় ছিল।এ প্রসঙ্গে আমাদের দৈনিক বগুড়ার মহাস্থান প্রতিনিধি এস আই সুমন কে হাট ইজারাদার শফিকুল ইসলাম শফি বলেন, কোরবানির পশুর হাটে ক্রেতা-বিক্রেতাদের নিরাপত্তার ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। জাল টাকা সনাক্ত করণে ইজারাদারদের মেশিন ব্যবহার করতে বলা হয়েছে। যাতে কোন ক্রেতা-বিক্রেতা শিকার না হন। পাশাপাশি ক্রেতাদের সুবিধার্থে মোটর সাইকেল গ্যারেজ, বিদ্যুতের ব্যবস্থা, পানির ব্যবস্থা করা রয়েছে এবং ব্যাবসায়ীদের নিরাপদে থাকা খাওয়ার ব্যাবস্থা রয়েছে। আগামী শনিবারেও কোরবানীর পশু হাট বসবে বলেও তিনি জানান।
এদিকে প্রচুর লোক সমাগম ও গরু আমদানী হওয়ায় রংপুর বগুড়া মহাসড়কে তীব্র জানযটের সৃষ্টি হয়,রাস্তায় ট্রাফিক পুলিশ ও শিবগঞ্জ থানা পুলিশকে জানযট নিরসনে কাজ করতে দেখা যায়।

Leave A Reply

Your email address will not be published.