Ultimate magazine theme for WordPress.

বগুড়ার নামুজায় পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র অথবা থানা স্থাপনের দাবী

115

বগুড়ার নামুজা, বুড়িগঞ্জ, মাঝিহট্ট, পিরব ও পাইকড় ৫টি ইউনিয়ন জুড়ে নামুজায় একটি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র/থানা স্থাপন করার দাবী জানান এলাকাবাসী। নামুজায় ১টি ডিগ্রী কলেজ, ২টি উচ্চ বিদ্যালয়, ১টি ফাজিল মাদ্রাসা, নামুজা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ অনেক প্রাথমিক বিদ্যালয়, বেশ কয়েকটি কেজি স্কুল, হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানা, সোনালী ব্যাংক, খাদ্য গুদাম, ২টি বিরাট গরু ছাগলের হাট, ১টি ডাকঘর, ১টি ভূমি অফিস, উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র, পশু প্রজনন কেন্দ্র, বিশাল খেলার মাঠ, পাঠাগার, প্রেসক্লাব এবং সরকারি বে-সরকারি, সাহিত্য শাসিত ছোট বড় অনেক প্রতিষ্ঠান থাকলেও পুলিশ প্রসাশনের কোন ফাঁড়ী বা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র নাই। ইতিপূর্বে নামুজায় পুলিশ ফাঁড়ী ছিল। তাহা হঠাত করে তুলে নেওয়া হয়। ফলশুতিতে নামুজা, বুড়িগঞ্জ, মাঝিহট্ট, পিরব ও পাইকড় ৫ টি ইউনিয়নে খুন, রাহাজানী, সন্ত্রাসী, ডাকাতি, ছিনতাই, মাদক সেবন ও চোরাকারবারীসহ বিভিন্ন প্রকার অপরাধমূলক কর্মকান্ড ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। নামুজা থেকে বগুড়া সদর থানা ১৮কিলোমিটার, শিবগঞ্জ থানা ১৫কিলোমিটার, কাহালু থানা ১৭কিলোমিটার দুরুত্ব হওয়ায় অত্র এলাকাটি ক্রাইম স্পট হিসাবে বেছে নিয়েছে সন্ত্রাসীরা। এখানে প্রতি নিয়ত ঘোরাফেরা করে দাগী ও ফেরারী আসামীসহ ক্রাইম জগতের অপরিচিত লোক। অত্র এলাকার আইন শৃংখলার কথা চিন্তা করে নামুজায় একটি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র/থানা স্থাপন করার দাবী জানান অত্র এলাকার সচেতন মহল। অতি সত্তর নামুজায় একটি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র/থানা স্থাপনের জন্য সংশিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট আকুল আবেদন জানান নামুজা তথা অত্র এলাকার সচেতন মহল। ১৯৭৪ সালে তৎকালীন সরকার প্রধান নামুজা থানা গঠনের লক্ষে এলাকা পূনঃ বিন্যাস কমিটির দ্বারা নামুজা ও সোনাতলা নামে ২টি থানা গঠনের সুপারিশ করা হয়েছিল। তৎকালিন সময় নামুজা ও সোনাতলা থানা গঠন কমিটির সভাপতি ছিলেন তছলিম উদ্দিন, ১৯৭৪ সালের মার্চ মাসে মামুদুল হাসান খাঁন ও ডাঃ জাহেদুর রহমান নামুজায় পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র স্থাপনের জন্য সুপারিশ করলে তৎকালিন সরকার প্রধান বঙ্গবন্ধ শেখ মজিবুর রহমান নামুজা ও সোনাতলা থানা গঠনের আশ্বাস দেন। কিন্তু বঙ্গবন্ধু নিহত হওয়ার পর নামুজা থানা গঠনের কাগজপত্র ফাইল চাপা পড়ে থাকে। ১৯৮৩ সালে প্রশাসন বিকেন্দ্রীকরণ সময়ে সোনাতলা থানা বাস্তবায়ন হলেও নামুজা বাসীর প্রাণের দাবী পূরুণ হয়নি। সেই সময় বগুড়া জেলা পুলিশ প্রশাসন যথা নিয়মে নামুজা থানা গঠনের সুপারিশ করলেও তা ফাইল বন্ধী রয়েছে। নামুজায় পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র স্থাপনের বিষয়ে স্থানীয় সাংসদ ও বিরোধী দলীয় হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুল ইসলাম ওমর নামুজায় কয়েকটি আলোচনা সভায় পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রটি দ্রুত বাস্তবায়নের আশ্বাস দিলেও অদ্যবধি তা বাস্তবায়ন হয়নি। এমতাবস্থায় স্থানীয় সাংবাদিক ও সূধীজনের এক মতবিনিময় সভায় বক্তারা বিষয়টি প্রশাসনের শুভদৃষ্টি আসবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রতিবেদক
আনোয়ার হোসেন
সাধারণ সম্পাদক
নামুজা-বুড়িগঞ্জ প্রেসক্লাব, বগুড়া।
০৬ অক্টোবর ২০২০
০১৭১২-৪০৬২১৮

Leave A Reply

Your email address will not be published.

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com