Ultimate magazine theme for WordPress.

বগুড়ার মহাস্থানে মৌবন হোটেলের দেহ ব্যবসার মূল হোতা হোটেল মালিক সহ পতিতাকে ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা প্রদান

777

শিবগঞ্জ (বগুড়া) প্রতিনিধি ঃ বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার পূর্নভূমি মহাস্থান মাজারের পূর্বপার্শ্বে দীর্ঘদিন যাবৎ হোটেল মৌবনে অনৈতিক কার্যকলাপ চালিয়ে আসছিল একটি মহল। ইতিমধ্যেই ৩ বার পুলিশ অভিযান চালিয়ে কয়েক ডজন পতিতা ও খদ্দর সহ আকট করে শাস্তির ব্যবস্থা করলেও টনক নরেনি হোটেল মালিক আতাউর রহমানের। আইনকে বার বার অবজ্ঞা করে কোন অদৃশ্য খুঁটির জোরে চালিয়ে যাচ্ছে এ অনৈতিক কাজ। এর রহস্য আজও উদঘাটন করা সম্ভব হয়নি। পুলিশও নাছর বান্দা, নজরদারিতে রেখেছে মৌবন হোটেল এর সমস্ত কার্যক্রম। এরই বিধিবাম অবশেষে পদ্মার অন্তরালে থাকা হোটেল মালিক আতাউর রহমান (৪৮) সহ এক পতিতা কে রবিবার বিকাল সাড়েতিনটায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজেষ্ট্রেট আলমগীর কবীর এর নেতৃত্বে শিবগঞ্জ থানার এসআই মোস্তাফিজুর রহমান ও এসআই শহিদুল ইসলাম শহিদ-২ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মহাস্থান মৌবন হোটেল অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করে ভ্রাম্যমান আদালতে বগুড়া সদরের পলাশবাড়ী গ্রামের মৃত: রজিব উদ্দিন এর পুত্র হোটেল মালিক আতাউর রহমান (৪৮) কে পতিতাদের দিয়ে দেহব্যবসা করে পুনরায় গণ উপদ্রব সংঘটিত করার অপরাধে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড ও পতিতা নাটোর জেলার গুদাসপুর থানার কচিকাটা গ্রামের আব্দুল গোফ্ফার প্রাং এর মেয়ে নুপুর (২৫) কে ২ শত টাকা জরিমানা প্রদান করা হয়। পরে ভ্রাম্যমান আদালতের সাজার প্রেক্ষিতে হোটেল মালিক আতাউর রহমান কে সন্ধ্যায় বগুড়া জেল হাজুতে প্রেরণ করা হয়।

Leave A Reply

Your email address will not be published.