Ultimate magazine theme for WordPress.

বগুড়ার শিবগঞ্জে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ডাকাত ও ডিবি পুলিশের গুলি বিনিময় গুলিবৃদ্ধ ২ ডাকাত সহ আটক ৬

437

বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুঞা (বিপিএম বার) এর দিক নির্দেশনায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বগুড়া ডিবি‘র একটি চৌকস টিম বগুড়া জেলা গোয়েন্দা বিভাগ(ডিবি) এর অফিসার ইনচার্জ মোঃ আসলাম আলী-(পিপিএম) এর নেতৃত্বে ইন্সপেক্টর মোঃ মোস্তাফিজ হাসান ও অফিসার ফোর্স সহ গতকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা ১৫ মিনিটে বগুড়া জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার আমতলী ব্রীজের পূর্ব পাশে মোকামতলা, জয়পুরহাট অাঞ্চলিক রাস্তার উপর ডাকাতি সংঘঠিত সময় পুলিশ পৌঁছা মাত্রই ডাকাতদল পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সরকারী কাজে বাধা দান পূর্বক একই উদ্দেশ্যে পুলিশকে লক্ষ্য করে এলোপাথারী গুলি বর্ষণ করতে থাকে।এ সময় পুলিশ সরকারী সম্পদ, অস্ত্রগুলি ও জানমাল রক্ষার্থে অফিসার ইনচার্জ এর নির্দেশে সর্ব মোট ১২ (বারো) রাউন্ড শর্টগানের গুলি ফায়ার করে। ডাকাত দল ও পুলিশের মধ্যে পাল্টাপাল্টি গুলি বর্ষণে ২জনকে গুলিবিদ্ধ রক্তাক্ত গুরুতর জখম অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ। গুলিবিদ্ধ ২ ডাকাত বগুড়ার কাহালুর পশ্চিম ভুগোইল গ্রামের মৃত আবির উদ্দিনের পুত্র রমজান আলী (৪৫) ও শিবগঞ্জ উপজেলার আব্দুল বাহাপুর সাদুল্যাপুর গ্রামের আমজাদ হোসেনর পুত্র আব্দুল রাজ্জাক (৩৮)। এঘটনায় আহত আরও ৪জন হলো, মোঃ করিম (৩৭) পিতা মৃত আবির উদ্দিন, মোঃ মুক্তার হোসেন (২২), পিতা মোঃ সামছু মিয়া এরা কাহালু পশ্চিম ভুগোইল গ্রামের বাসিন্দা, মোঃ ইউছুফ আলী (৩২), পিতা মোঃ শাজাহান আলী, সে নামুজা পল্লাপাড়া গ্রামের, মোঃ রায়হান করিব(২৫), পিতা মোঃ মোকছেদুর রহমান, সে গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ী এলাকার বাসিন্দা বলে পরিচয় পাওয়া যায়। তাদের কাছে তল্লাশী করে ১টি ওয়ান শুটারগান, ২ রাউন্ড রাবার বুলেট, ২টি রামদা, ২টি হাসুয়া), ২ টি গ্রিল কাটার যন্ত্র (কার্টার), একটি সাদা রংয়ের প্লাষ্টিকের ব্যাগের মধ্যে ১ টি কাঠের বাট যুক্ত হাতুড়ি যাহা বাট সহ লম্বা। ২টি ষ্টীলের তৈরি আকৃতির ডাল রেঞ্জ যাহা প্রতিটি লম্বা ১১সাড়ে এগারো ইঞ্চি, লাল ও সাদা রংয়ের গামছার অংশ বিশেষ, লাইলনের সাদা রংয়ের রশি যাহা লম্বা ১৬ ফিট, ০১ (এক) টি পানি রংয়ের কার্টুন কস্টেপ উদ্ধার করা হয়েছে। আহতদের বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। এ বিষয়ে বগুড়া ডিবি‘র অফিসার ইনচার্জ মোঃ আছলাম আলী-(পিপিএম)এর সাথে কথা বললে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধৃত ব্যক্তিরা আন্তঃ জেলা ডাকাত দলের সক্রিয় সদস্য। তারা ঈদকে সামনে রেখে ডাকাতি করতে সংঘবদ্ধ হয়ে উঠেছিল। তাদের বিরুদ্ধে নওগাঁ, বগুড়া ও দিনাজপুর জেলায় খুন ও ডাকাতি সহ একাধিক মামলা রয়েছে। আটককৃত ডাকাতদের বিরুদ্ধে শিবগঞ্জ থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.