Ultimate magazine theme for WordPress.

বগুড়ার শেরপুরে ঘাতক বন্ধুর হাতে বন্ধু খুন

233

তাজুল ইসলাম,বগুড়া জেলা প্রতিনিধি: ঘাতক বন্ধুর হাতে বন্ধু খুন জন্মের ২৪ ঘন্টা পূর্বেই বাবা হারালেন শিশু আব্দুল্লাহ। বগুড়ার শেরপুরে জোরগাছা এলাকার ধান ক্ষেতের ভিতর থেকে ১ অক্টোবর বৃহস্পতিবার দুপুরে ইজিবাইক চালক মিনহাজ শেখ (২২) এর লাশ উদ্ধার করেছে শেরপুর থানা পুলিশ। এ ঘটনায় খুনি বন্ধু রাব্বি (২২) কে আটক করা হয়েছে।
তথ্যসূত্রে জানা যায়, বগুড়ার ধুনট উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের বিশ^হরিগাছা গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে রাব্বি একই গ্রামের তার বন্ধু মোজাদ্দারের ছেলে মিনহাজের ইজিবাইক নিয়ে গত ২৯ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকেলে বেড়ানোর কথা বলে শেরপুর উপজেলার সুঘাট ইউনিয়নের আওলাকান্দি গ্রামে আসে। পথিমধ্যে এক দোকান থেকে কোমল পানীয় স্পিড কিনে তার মধ্যে ১০ টি ঘুমের ঔষধ মিষিয়ে মিনহাজকে খাওয়ায়। ওই পানিয় খেয়ে মিনহাজ অচেতন হয়ে পরলে এই সুযোগে রাব্বি বন্ধু মিনহাজকে উপর্যিপুরি ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে। এমনকি লাশ যেন কেউ না চিনতে পারে সেজন্য ধারালো চাকু দিয়ে মুখের চামড়া কেটে ফেলে। পরে ঘটনার মোড় অন্যদিকে ঘুরিয়ে দিতে রাব্বি ৯৯৯ এ ফোন করে বলে যে ছিনতাইকারীরা আমার বন্ধু মিনহাজকে খুন করে তার ইজিবাইক ছিনতাই করে নিয়ে গেছে। আমি বাধা দিলে আমাকে চাকু মেরে ফেলে রেখে গেছে। ৯৯৯ থেকে তাকে স্থানীয় থানায় গিয়ে জিডি করতে বললে রাব্বি থানায় যায়। পুলিশ রাব্বিকে জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে সে সত্য ঘটনা বলে দেয়। তখন তাকে শেরপুর থানা পুলিশ আটক করেন। রাব্বির দেয়া তথ্যমতে বগুড়া পুলিশ সুপার মো. আলী আশরাফ ভূঞা (বিপিএম বার), অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) আব্দুর রশিদ, শেরপুর সার্কেল মো. গাজিউর রহমান, জেলা ডিবি পুলিশের ইনচার্জ আসলাম হোসেন, শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদসহ সঙ্গীয় ফোর্স ১ অক্টোবর বৃহস্পতিবার দুপুরে সুঘাট ইউনিয়নের জোরগাছা গ্রামে অভিযান চালিয়ে ধানের জমির ভিতর থেকে মিনহাজের লাশ উদ্ধার করেছেন।
এ ব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শেরপুর সার্কেল মো. গাজিউর রহমান বলেন, রাব্বির কোন আয় রোজগার ছিলনা। তাই সে বিভিন্ন অপরাধে জরিয়ে পরে। এরই ধারাবাহিকতায় পরিকল্পনা করে তার বন্ধু মিনহাজের ইজিবাইক ছিনতাই করার উদ্দেশ্যে তাকে সুঘাট এলাকায় নিয়ে এসে খুন করে। র্লাশ ময়না তদন্ত শেষে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে। রাব্বির বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।
বগুড়া পুলিশ সুপার মো. আলী আশরাফ ভূঞা (বিপিএম বার) উপস্থিত বিপুল সংখ্যক জনতার উদ্দেশ্যে বলেন, শুধু আপনার সন্তানকে নিরাপদ রাখলেই আপনার সন্তান নিরাপদ নয়,অন্যেও সন্তানের নিরাপদ নিয়েও ভাবতে হবে। আপনার সন্তান যাদের সাথে মেলামেশা করছে তারাও নিরাপদ কিনা সে দিকেও নজর রাখতে হবে। একবার ভাবুন এই খুনি রাব্বির যদি কোন ছেলে-মেয়ে থেকে থাকে সে এখন কোন পরিচয়ে বড় হবে। বড় হয়ে তাদেরকে শুনতে হবে তাদের বাবা একজন খুনি।

তাজুল ইসলাম,
বগুড়া জেলা প্রতিনিধি:
০১৭৬১৮৯৩০০২

Leave A Reply

Your email address will not be published.

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com